For a better experience please change your browser to CHROME, FIREFOX, OPERA or Internet Explorer.
মাইজদী নামটি মাইজ্জা দিদি থেকেই ধীরে ধীরে নাম হয়েছে ‘মাইজদী’

মাইজদী নামটি মাইজ্জা দিদি থেকেই ধীরে ধীরে নাম হয়েছে ‘মাইজদী’

মাইজদী শহরে তিন বোন ছিল তারা এর মধ্যে দুইজনের কথা খুব বেশি কারো জানা নেই, যার কথা জানি সে ছিল মেঝ। সুধারাম মজুমদারের মেঝ মেয়েটিই ছিল প্রচণ্ড পরোপকারী এবং সবার খুব প্রিয়। প্রজারা সবাই তাদের বিপদে আপদে তাকে পেত। মেজ মেয়ে সবাই এই কন্যাকে ডাকতো মাইজ্জা দি (মেঝ দিদি) বলে। আর এই মাইজ্জা দি থেকেই ধীরে ধীরে এই জায়গাটার নাম হয়ে যায় মাইজদী।

নোয়াখালী জেলার এই অঞ্চলের মানুষরা হাজার বছরের ভাঙ্গা গড়ার সাথে লড়াই করে টিকে আছে। সেই পুরোনো শহর এখন আর নেই ব্রিটিশ পিরিয়ডেই তা নদী গর্ভে তলিয়ে যায়। তারপর এতোদিনে আবার গড়েছে সব নতুন করে।এখন মাইজদী থেকে দক্ষিনে জেগেছে প্রায় ৬০/৭০ মাইল এর বেশী ভূমি।

আমাদের বেড়ে ওঠা এই এক রাস্তার শহরেই। কি যে সাজানো গোছান ছিল সব। কি যে ভাল ছিল চারদিকের পরিবেশ। যে আসতো ঘরবাড়ি করে থেকে যেত। শিল্প সংস্কৃতি শিক্ষা চর্চার একটা গুপ্তস্থান ছিল যেন এটা। নিশ্চিন্তে চলাচলের আধার ছিল। ছিল মানুষ গড়ার উত্তম আবহাওয়া।চাঁদাবাজি, সন্ত্রাস, দখলবাজি, মাদক, রাহাজানী এই সব কেউ চিনতোও না পর্যন্ত।

কতো কি যে হতো। গ্ল্যামার ছিলনা কিন্তু রমরমা শীতল ভালবাসার গন্ধ ছিল। উজ্জ্বল সূর্যের আলোর ছটায় যেন ভেসে বেড়াতো উদ্দীপ্ত চকচকে চোখের কিশোর তরুনেরা। পাড়ায় পাড়ায় পাঠাগার ছিল। স্বচ্ছপানির শতবর্ষি পুকুর ছিল। স্কুল ছুটির পর রৌদ্রজ্জ্বল দুপুরে নারকেল, আম, বাদাম সহ আরো নানা রকম গাছে ঘেরা পুকুরে দাপাদাপি আর ঝিনুক খোঁজার নেশা ছিল।

মঞ্চে শিশুতোষ নাটক এর মায়াচ্ছন্ন এক আচ্ছন্নতা ছিল। গান, আবৃত্তি, কুইজ, বিতর্ক এগুলোর প্রতিযোগিতার উত্তেজনায় ঘুম হারিয়ে যাওয়ার অবস্থা ছিল। কলকল, কুহু কুহু, ঝিঁ ঝিঁ ডাক ছিল। বিজয় মেলায় বিজয়ের প্রফুল্ল আনন্দ ছিল। বিজয় মঞ্চে বিজয়ের চাপা উল্লাস ছিল।

সব যেন শক্তিশালী কোন এসিডে ঝলসে গেছে। চারদিকে যেন তরল দগ্ধতা। রাস্তায়, মানুষে, আশে পাশে সবটা জুড়েই তাই। কোন কিছু দেখার বা বলার কেউ নেই। এখানকার মা বাপ নেই কোন। নেই কোন সুশীল সমাজ। দলমত নির্বিশেষে কুশিলরা আজ নেতৃত্ব দিচ্ছে সব। লোভ আর অশিক্ষার কুপ্রভাবে সব ঝলসানো।

দাম নেই, মর্যাদা নেই, মূল্যায়ন নেই, প্রভাব নেই, অবস্থান নেই নিঃসার্থ কোন গূনীর, কোন সুশীলের। বছর বছর বিজয় এর মাস আসে। বিজয় মেলা হয়। হাজার লক্ষ মানুষ আসে। বড় বড় মানুষ জনেরা গলা নিঃসৃত অমিয় সুর ছেড়ে দেয় ইথারে।

আলাপ হয়না, কথা হয়না, ভাবা হয়না, চেতনা হয়না, উঠে আসেনা, তর্ক হয়না, বিতর্ক হয়না এই যেন এক ঘুমন্ত শহর।

© Muaz Bin

Top